ব্রাজিলীয় সংবাদ মাধ্যম গ্লোবো জানায়, আগ থেকেই সর্দিজ্বরে ভুগছিলেন তিনি, বৈঠকটির আগে ওষুধও নিয়েছিলেন বলে জানায় সংবাদ মাধ্যমটি। বৈঠকটিতে স্বাভাবিকভাবে অংশ নিলেও এরপরই দারুণ জ্বর নিয়ে স্থানীয় একটি হাসপাতালে ভর্তি হন তিনি।

সেখানে অ্যান্টিবায়োটিকের মাধ্যমে তার চিকিৎসা চলছে এবং আরো দুই তিনদিন পর সেখান থেকে পেলে ফিরবেন বলে জানিয়েছেন তার মুখপাত্র পেপিতো ফোরনোস।